সুপার কার কেন এতো দামি

সুপার কার কেন এতো দামি?

প্রয়োজনের তাগিদেই মানুষ তাদের জীবন ধারণ ও চলাফেরার সুবিধার্থে বিভিন্ন কিছু তৈরি করে আসছে। যার অনবদ্য আবিষ্কার যন্ত্রচালিত যান। সময়ের পরিক্রমায় দুই চাকার গাড়ি থেকে চার চাকার যান, শুধু তাই নয় এখন একবিংশ শতাব্দিতে সাধারন যান থেকে সুপার কারের জয়জয়কার আবিষ্কার আগামির বিশ্বকে এক আগাম বার্তা জানান দিচ্ছে। হয়তো বেশিদিন নয় সাধারন মানুষের কাছে সুপার কারের ব্যবহার হয়ে উঠবে সাধারন। এমনি বর্তমান সময়ের কিছু অত্যাধুনিক গাড়ি সম্পর্কে আজ আলোচনা করবো।

১. 1963 Ferrari 250 GTO : $৭০ মিলিয়ন

Ferrari 250 GTO গাড়িটি ২০২১ সাল থেকে ২০২২ সালে এসেও এখনো অপরিবর্তিত রয়েছে। সর্বকালের সবচেয়ে ব্যয়বহুল গাড়ির জন্য আমাদেরকে আবারও ইতিহাসে ফিরে যেতে হবে। ১৯৬৪ সালে, 250 GTO গাড়িটি Tour de France অটোমোবাইল জিতেছিল। পরপর নয় বছর চিহ্নিত করে যে ফেরারী সেই রেস জিতেছিল। ১৯৬২ এবং ১৯৬৩ সালের মধ্যে এই গাড়িগুলোর মধ্যে মাত্র ৩৬ টি তৈরি হয়েছিল। Ferrari 250 GTO বিশ্বের সবচেয়ে ব্যয়বহুল যা অবিশ্বাস্য $৭০,০০০,০০০ দামে শুধুমাত্র Tour de France নয় এটি Le Mans ও বিজয়ী হয়েছিল।

1963 Ferrari 250 GTO

175mph প্রতি ঘন্টায় সর্বোচ্চ গতি এবং 6.1 সেকেন্ডে 0-60mph (0-100 km/h) গতি সহ, এর পরিসংখ্যান আধুনিক দিনের সুপারকার গুলো দাড়াতে পারে না। যাইহোক, ৬০ এর দশকে এটি ছিল বিশ্বের সবচেয়ে দ্রুততম গাড়ি এবং এখন, কয়েক দশক পরেও এটি সর্বকালের বিশ্বের সবচেয়ে ব্যয়বহুল গাড়ি রয়ে গেছে। কেউ কেউ এই গাড়িটিকে মোটরিং ওয়ার্ল্ডের পিকাসো বলে। সর্বকালের সবচেয়ে ব্যয়বহুল গাড়ির বর্তমান মালিকদের মধ্যে রয়েছেন আমেরিকান ফ্যাশন ডিজাইনার Ralph Lauren, Pink Floyd drummer Nick Mason এবং মাইক্রোসফটের প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট ও সিওও Jon A. Shirley ।

২. Rolls – Royce Boat Tail: $ ২৪ মিলিয়ন

Rolls- Royce Boat Tail গাড়িটি প্রমাণ করে যে কোয়ালিটি ও কোয়ান্টিটি একে অপরকে অতিক্রম না করেও চলতে পারে। এই সত্যিকারের ইউনিক গাড়িটি Coach-built মডেল হিসেবে ডিজাইন করা হয়েছিল। গাড়িটি বিশেষভাবে চিত্তাকর্ষক কারণ এতে J-Class Yacht এর পাশাপাশি অরিজিন্যাল 1932 Boat Tail উপাদান বিদ্যমান রয়েছে। Rolls- Royce Boat Tail গাড়িটি ২০২১ সালের শেষের দিকে ইতালির Concorso d’Eleganza Villa d’Este এ সর্বজনীন আত্মপ্রকাশ করেছিল। এটিতে 6.75 litre twin-turbo V12 engine রয়েছে যা প্রায় 563 horsepower শক্তি উৎপন্ন করতে সক্ষম। এটি আনুষ্ঠানিক ভাবে ২০২২ সালে বিশ্বের সবচেয়ে ব্যয়বহুল নতুন গাড়ি।

Rolls - Royce Boat Tail

৩. Bugatti La Voiture Noire: $ ১৮.৭ মিলিয়ন

২০১৯ সালে, Bugatti তাদের সর্বশেষ সুপারকার চালু করার জন্য একটি চমৎকার ব্র্যান্ডিং সিদ্ধান্ত নিয়েছিল। ফরাসি কোম্পানি তাদের প্রচারণার জন্য একটি তাৎক্ষণিক আইকনিক শিরোনাম বেছে নিয়েছিল: La Voiture Noire. The Black Car । এটিতে একটি কার্বন ফাইবার শেল রয়েছে যা হাতে তৈরি করা হয়েছে। গাড়িটি তে Quad-turbo W 16 8.10L ইঞ্জিন রয়েছে যা প্রায় 1500 horsepower শক্তি উৎপাদন করতে সক্ষম। এটি প্রায় 2.4 সেকেন্ডে 0-60 mph বা (0-100km/h) গতি লাভ করতে পারে। গাড়িটির প্রায় ঘণ্টায় সর্বোচ্চ 260mph বা (420 km/h) গতি তুলতে পারে। গাড়িটির সামগ্রিক কার্যকারিতা একটি অটো হাউজ দ্বারা নির্ভুল ইঞ্জিনিয়ারিং এর মাধ্যমে পরিচালনা করা হয়েছে যা কয়েক দশক ধরে বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী গাড়ি তৈরি করতে পারবে।

Bugatti La Voiture Noire

৪. Pagani Zonda HP Barchetta : $ ১৭.৬ মিলিয়ন

Zonda ছিল Pagani অটোমোবিলি অটো হাউজের প্রথম গাড়ি। বছর আগে, গাড়িটির উৎপাদন বন্ধ করার চেষ্টা করা হয়েছিল কিন্তু এর পরিবর্তে Pagani Zonda এক নতুন বিশেষ সংস্করণ নিয়ে বাজারে এসেছে। Zonda HP Barchetta এর নামের Barchetta অংশটি ইতালীয় পরিভাষায় এর অর্থ,একটি “ছোট নৌকা”। এটির ফ্রেম সম্পূর্ন রূপে কার্বন ফাইবার দ্বারা গঠিত যা এর গতি বৃদ্ধিতে বিশেষ ভূমিকা পালন করে। গাড়িটি একটি মিনিমাইজ করা উইন্ডশিল্ড রয়েছে এবং এর তার সবচেয়ে উঁচুতে মাত্র 21 ইঞ্চি (0.5 মিটার) লম্বা।

Pagani Zonda HP Barchetta

দুর্ভাগ্যবশত,  Pagani Zonda HP Barchetta হল সবচেয়ে দামী গাড়ি যা আপনি কিনতে পারবেন না। Zonda – এর এই অনন্য, নির্দিষ্ট সংস্করণ দিয়ে শুধুমাত্র তিনটি গাড়ি তৈরি করা হয়েছে। শেষবার যখন বিক্রি হয়েছিল, তখন এই গাড়ি গুলোর মধ্যে একটি $ ১৭.৬ মিলিয়নে গিয়েছিল। গাড়িটি প্রায় 3.4 সেকেন্ডে প্রায় 0-60mph (0-100 km/h) গতি লাভ করতে সক্ষম। এছাড়াও গাড়িটি ঘণ্টায় 220 mph বা (355 km/h) সর্বোচ্চ গতি লাভ করতে পারে।

৫. Rolls- Royce Sweptail : $ ১৩ মিলিয়ন

প্রাথমিকভাবে Rolls – Royce Sweptail কোনো নির্দিষ্ট কারণে তৈরি করা হয়নি, এটি একটি অনুরোধ ছিল। একটি গাড়ি যা বিশ্বের সবচেয়ে ব্যয়বহুল গাড়ির শিরোনামে পরিনত হয়েছিল এবং এটি এমন একটি মডেল যা বিশ্বের সকল গাড়ি প্রেমিকদের হৃদয় কেড়ে নিয়েছিল। এই গাড়ির সেরা জিনিসগুলোর মধ্যে অন্যতম হল এর পুরাতন ও নতুনের সংমিশ্রন। বর্তমানের সুপারকার ১৯২০ ও ৩০ এর দশকের গ্ল্যামারের ইঙ্গিতের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ। গাড়িটি প্রায় 5.6 সেকেন্ডে 0-60mph গতি বৃদ্ধি করতে সক্ষম। এছাড়াও গাড়িটি ঘণ্টায় সর্বোচ্চ 250 kph (155.375 mph) গতি লাভ করে।

Rolls- Royce Sweptail

৬. Bugatti Centodieci : $ ৯ মিলিয়ন

Bugatti ইতিমধ্যেই তার ইউনিক বডিওয়ার্ক এবং আরামদায়ক ও বিলাসবহুল বৈশিষ্ট্যের জন্য এক পরিচিত ব্র্যান্ডে পরিনত হয়েছে। Bugatti Centodieci ২০২২ সালে এসে আরো নতুন মাত্রা যোগ করেছে যা গ্রাহক পর্যায়ে আরো বিশেষ ভাবে সমাদৃত হচ্ছে। এই বিলাসবহুল সুপারকারটির মাত্র দশটি মডেল বিক্রিত হবে। উচ্চ মূল্যের হওয়া সত্বেও ফুটবল তারকা ক্রিশচিয়ানো রোনালদোর মত আরো অনেক বায়ার গাড়িটির জন্য ক্রেতা হিসেবে মত দিয়েছে। গাড়িটিতে অবস্থিত 1577-hp quad-turbo W-16 থাকা সত্বেও এটি বর্তমানে রাস্তায় থাকা সবচেয়ে দ্রুততম Bugatti নাও হতে পারে কিন্তু এটি দ্রুততম এক্সেলারেশন তৈরি করতে পারে। গাড়িটি প্রায় 2.4 সেকেন্ডে 0-62 mph (0-100 km/h) গতি তুলতে সক্ষম। এছাড়াও গাড়িটির সর্বোচ্চ গতি 236 mph (379 km/h) ।

Bugatti Centodieci

৭. Bugatti Divo: $ ৬ মিলিয়ন

Bugatti Chiron এমন একটি সাফল্য মন্ডিত ছিলো যে Bugatti Divo এটিকে খুব ভালো ভাবে অনুসরণ করে। এছাড়াও এর বেশ কয়েকটি অনুরূপ বৈশিষ্ট্য ও পরিলক্ষিত হয়ে থাকে। এটিকে বাইরে থেকে দেখতে বেশ এক্সকুসিভ ও এক্সোটিক দেখায়।গাড়িটিতে এর গতি বৃদ্ধির জন্য হালকা ফ্রেম এবং নতুন Dorsal fin ব্যবহার করা হয়ে থাকে। গাড়িটির  অভ্যন্তরে 4 turbocharger যুক্ত একটি  8.0L W-16 ইঞ্জিন রয়েছে। যা গতিতে এক অনন্য মাত্রা প্রদান করে। Divo তে প্রায় 1500 horsepower শক্তি উৎপন্ন হয় যা প্রায় 2.4 সেকেন্ডে 0-62 mph (0-100 km/h) গতি লাভ করতে সক্ষম। গাড়িটির সর্বোচ্চ গতি প্রতি ঘণ্টায় প্রায় 236 mph (380 km/h) । শুধুমাত্র  ৪০ টি Divo বিক্রির উদ্দেশ্যে তৈরি করা হয়ে থাকে।

Bugatti Divo

৮. Bugatti Chiron Super Sport 300+: $ ৫.৭ মিলিয়ন

Jesko এবং Murray T.50 এর প্রায় দ্বিগুণ দামে, Bugatti এর Chiron Super Sport 300+ সৌন্দর্যের পাশাপাশি গতি ও শক্তি উভয়ই প্রদান করে থাকে। প্রতিটি গাড়ির হুডের নিচে কয়েক দশকের বিশেষজ্ঞ কারুশিল্পীদের শৈল্পিকতা পরিলক্ষিত হয়। Bugatti গাড়ি গুলো প্রায়ই কয়েক মিলিয়নের গণ্ডিতে পরিলক্ষিত হয়। গাড়িটির সম্মুখভাগে যে পাতলা বক্ররেখা থাকে তা গাড়িটিকে বর্তমানের সুদূরপ্রসারী আধুনিকতার জানান দেয়। এটিতে Quad-turbocharged যুক্ত 8L W-16 মোটর থাকে যা প্রায় 1,577 Horsepower পর্যন্ত শক্তি উৎপাদন করতে সক্ষম। কয়েক বছর আগে গাড়িটি অতীতের গোল্ডেন স্পিড ব্যারিয়ারের 300mph (483 km/h) গতির রেকর্ড কে অতিক্রম করে এবং বিশ্বের সবচেয়ে ব্যয়বহুল গাড়ি হিসেবে আত্মপ্রকাশ করে।

Bugatti Chiron Super Sport 300+

Bugatti Chiron Super Sport 300+ গাড়িটি মাত্র 2.4 সেকেন্ডের মধ্যে 0-60 mph গতিতে পৌঁছাতে পারে এবং এটি প্রায় 300 mph সর্বোচ্চ গতি লাভ করে থাকে। এর আরো একটি সুবিধা হল গাড়িটিতে Basic infotainment system রয়েছে যা একই সাথে অ্যাপল ও অ্যান্ড্রয়েড উভয়ের সাথে Syncs করতে সক্ষম।

৯. Lamborghini Sian: $ ৩.৬ মিলিয়ন

Lamborghini Sian কে Bolognese উপভাষায় অনুবাদ করলে এর অর্থ দ্বারায় Lamborghini “lightbolt”, যা আপনাকে এই সুপারকারটি কি করতে সক্ষম তা সম্পর্কে কিছুটা ধারণা দিবে। Lamborghini Sian এখন পর্যন্ত তৈরি করা সবচেয়ে শক্তিশালী Lamborghini ই নয় এটি সবচেয়ে ব্যয়বহুল ও বটে।

Lamborghini-Sian

তবে এর ডিজাইন ও শক্তিশালী কর্মদক্ষতা গাড়িটিকে অসাধারণ করে তুলেছে। এই সীমিত সংস্করণের হাইব্রিড সুপারকারটি মোট মাত্র ৬৩ জন গ্রাহকের কাছে বিক্রিত হয়েছিল। Sian কে এখন পর্যন্ত তৈরি করা সবচেয়ে কাস্টমাইজ যোগ্য Lamborghini হিসেবে ডিজাইন করা হয়েছে। গাড়িটিতে অবস্থিত প্রত্যেকটি রঙ এর আসন ও অভ্যন্তরের কার্বন ফাইবার বডিকে ঢেকে রাখে। গাড়িটি মাত্র ২.৮ সেকেন্ডের ও কম সময়ে খুব সহজেই 0-60 mph গতিতে পৌঁছাতে পারে এবং এর সর্বোচ্চ গতি প্রায় 217 mph ।

১০. Pagani Huayra BC Roadster: $৩.৫ মিলিয়ন

Pagani Huayra BC গাড়িটি শুধু চিত্তাকর্ষক নয়, এটি খুবই চমকপ্রদ একটি সুপারকার। এটি এমন একটি গাড়ি যা আপনি প্যাডেলে পা রাখার আগেই এই প্রশংসার দাবিদার। এছাড়াও এর সুন্দর চেহারা গাড়ির প্রাইস ট্যাগ কে যেকোনো ভাবে সমর্থনের দাবি রাখে। ২০১১ সালে গাড়িটি বাজারে আসার পর থেকে এটি দাম বর্তমানে তিন গুণের ও বেশি ছাড়িয়েছে। এই গাড়ির অসম্ভব গতি গাড়িটিকে আরো অনন্য করে তুলেছে যা গাড়িটির গঠিনপ্রনালীর উপর অনেকাংশে দায়ী। এটি এমন একটি উপাদান দ্বারা গঠিত যা নিয়মিত কার্বন ফাইবারের থেকেও হালকা, যাকে বলা হয় কার্বন টাইটানিয়াম HP62 ।

গাড়িটির কোম্পানির প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান ডিজাইনার Horacio Pagani প্রতিটি BC Roadster গাড়িটির কুলনেস ও ক্লাসি কালার এর জন্য বিশেষ ভাবে দায়ী ছিলেন। যা গাড়িটিকে অনন্য এক সৌন্দর্যে পরিপূর্ণ করেছে। গাড়িটির নামে অবস্থিত ‘BC’ হল নিউইয়র্কের রিয়েল এস্টেট Benny Caiola, যিনি ২০০০ সালে Zonda এর প্রথম মালিক এবং Horacio Pagani এর বন্ধু।

    গাড়ির সুরক্ষায় প্রহরী সম্পর্কে জানতে

    Share your vote!


    এই লেখা নিয়ে আপনার অনুভূতি কী?
    • Fascinated
    • Happy
    • Sad
    • Angry
    • Bored
    • Afraid

    মন্তব্যসমূহ

    
    footer-svg